জনগণেরর আস্থা অর্জন করে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় বাংলাদেশ পুলিশ

 মোঃ তরিকুল ইসলাম,চরফ্যাশন ভোলা প্রতিনিধিঃ চরফ্যাশন মনপুরা থানা পুলিশের আয়োজনে আজ ২৮-১১-২০২০ খ্রিঃ তারিখ মনপুরা থানা প্রাঙ্গনে মাদক, জঙ্গি, ইভটিজিং, বাল্য-বিবাহ, যৌতুক, সাইবার ক্রাইম সহ সামাজিক অবক্ষয় প্রতিরোধে কমিউনিটি পুলিশিং সভা অনুষ্ঠিত হয়। 

সভায় প্রধান অতিথি হিসেব উপস্থিত ছিলেন জনাব মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অপরাধ) ভোলা। তিনি পুলিশি সেবাকে জনগনের দোরগোড়ায় পৌছে দিতে কমিউনিটি পুলিশিং এর উপর বিশেষভাবে গুরুত্বারোপ করেন। কমিউনিটি পুলিশিং এর মাধ্যমে পুলিশ সদস্যরা তৃনমূল পর্যায়ে দায়িত্ব পালন করে জনগণের আস্থা অর্জনের মাধ্যমে জননিরাপত্তাকে আরো জোরদার করতে গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রধান অতিথি বলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের মহাসড়কে বাংলাদেশ। এ উন্নয়নের ধারাকে আরো গতিশীল রাখতে জনগণেরর আস্থা অর্জন করে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় ও উন্নত সেবা প্রদানে বাংলাদেশ পুলিশ সর্বদা কাজ করে যাবে। কমিউনিটি পুলিশিং এর আইনগত ভিত্তি সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয় উল্লেখ করে তিনি বলেন-অপরাধ দমন, অপরাধ প্রতিরোধ এবং সামাজিক সমস্যা সমাধানে  কমিউনিটি পুলিশিং ভ্যাকসিন হিসেবে কাজ করে। মুজিবর্ষের অঙ্গীকার পুলিশ হবে জনতা’ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আমাদের এ অঙ্গীকার বাস্তবায়নে আমাদের প্রানান্তর প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। আমরা চাই সত্যিকারের জনগণের পুলিশ হতে। একটি সমৃদ্ধ সোনার বাংলা গঠনে যে ধরনের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি এবং নিরাপদ পরিবেশ দরকার সেটি বাস্তবায়নে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। সামাজিক অবক্ষয় প্রতিরোধে আগামী প্রজন্মকে সুন্দর রাষ্ট্র উপহার দিতে পরিবার থেকে শুরু করে সমাজের তৃণমূল পর্যন্ত সবাইকে পুলিশের বন্ধু হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরো বলেন, আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ মহোদয়ের সুদূর প্রসারী চিন্তা-ভাবনার মাধ্যমে সর্বশেষ কমিউনিটি পুলিশিং এর পরিপূরক কর্মসূচি হিসেবে বিট পুলিশিং কার্যক্রমকে সারাদেশের মতো ভোলায়ও  শক্তিশালী ভাবে অব্যাহত আছে। তিনি বলেন বিট পুলিশিং হচ্ছে আধুনিক পুলিশিং। বিট পুলিশিং এর  মাধ্যমে থানা এলাকায় ছোট ছোট ভাগে বিভক্ত হয়ে সেবার মান আরও গতিশীল করে জনগণের কাছে কাঙ্খিত সেবা পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হবে। তিনি পুলিশিং কার্যক্রমকে জনগনের কাছাকাছি পৌঁছে দিতে পুলিশকে আন্তরিক হয়ে কাজ করতে বলেন। থানার সেবার মান বৃদ্ধি, পুলিশের সেবাকে সরাসরি থানা থেকে তৃণমূল পর্যন্ত বিস্তৃত করে পুলিশিং কার্যক্রমকে তরানিত্ব, গতিশীল, গনমুখী ও জনবান্ধব পুলিশি সেবা প্রদানে জনগনকে আশ্বাস দেন। 

সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মিসেস শেলীনা আক্তার চৌধুরী উপজেলা চেয়ারম্যান ও সভাপতি মনপুরা উপজেলা আওয়ামীলীগ এবং জনাব মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, প্রিন্সিপল মনপুরা সরকারী ডিগ্রী কলেজ ও সভাপতি কমিউনিটি পুলিশিং মনপুরা থানা,  জনাব মোঃ আমানত উল্লাহ আলমগীর চেয়ারম্যান ১নং মনপুরা ইউনিয়ন পরিষদ, জনাব মোঃ আলমগীর হোসেন, সভাপতি মনপুরা প্রেসক্লাব সহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও ইলেকট্রনিক প্রিন্ট মিডিয়ার ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

 

 9,723 total views,  1 views today