আজ সালমান শাহের ২৫ তম মৃত্যু বার্ষিকী

 কবির আহমেদ,বাংলাদেশ ডেস্কঃ বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে ধূমকেতুর মতো আর্বিভাব ঘটেছিল সালমান শাহের। মাত্র চার বছরে ২৭টি সিনেমায় অভিনয় করে খ্যাতির শীর্ষে পৌঁছে গিয়েছিলেন এই নতুন মুখের তারকা সালমান শাহ।বৃহস্পতি তুঙ্গে থাকা অবস্থাতেই সালমান শাহ ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর রহস্যজনকভাবে মৃত্যুবরণ করেন।

২৫ বছর পরেও তার মৃত্যুর রহস্যের সঠিক কারন জানা যায় নি। সালমান শাহের মৃত্যু নিয়ে দুই মত প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। সর্বশেষ তদন্ত সংস্থা পিবিআইও বলছে, তিনি আত্মহত্যা করেছেন। আর তার মায়ের দাবি এটি হত্যাকাণ্ড। তবে বাংলাদেশের মানুষ এখনো তাকে ভুলতে পারেনি।

১৯৯৬ সালের এই দিনে (৬ সেপ্টেম্বর) সালমান শাহের লাশ রাজধানী ঢাকার ১১/বি নিউ ইস্কাটনের বাসার নিজ কক্ষে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায়। সালমানের মৃত্যুর ঘটনায় তার বাবা সাবেক ম্যাজিস্ট্রেট কমরউদ্দিন আহমদ চৌধুরী একটি অপমৃত্যুর মামলা করেন। পরে ১৯৯৭ সালের ২৪ জুলাই সালমানকে হত্যা করা হয়েছে অভিযোগ করে মামলাটি হত্যা মামলায় রূপান্তরের আবেদন করা হয়।

একাধিক সংস্থার তদন্তে সালমানের মৃত্যুকে আত্মহত্যা বলে উল্লেখ করা হয়। কিন্তু তা এখনো মেনে নিতে পারেনি পরিবার ও তার অগনিত ভক্ত।

সর্বশেষ ২০১৬ সালের শেষের দিকে পিবিআইকে নতুন করে মামলার তদন্তভার দেওয়া হয়েছে। গত বছর ২৫ ফেব্রুয়ারি মামলাটিতে সালমান শাহ আত্মহত্যা করেছেন মর্মে চূড়ান্ত প্রতিবেদন জমা দেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআইয়ের পুলিশ পরিদর্শক সিরাজুল ইসলাম। পিবিআই’র দেওয়া চূড়ান্ত প্রতিবেদনটির ওপর নারাজি দিবেন সালমান শাহ’র মা নীলা চৌধুরী।

সর্বশেষ  গত ৩১ আগস্ট ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মামুনুর রশীদের আদালতে মামলাটি চূড়ান্ত প্রতিবেদন গ্রহণের জন্য ধার্য ছিল। কিন্তু সালমান শাহর মা লন্ডনে থাকায় নারাজি দাখিলে সময়ের আবেদন করেন তার আইনজীবী। আদালত সময় আবেদন মঞ্জুর করে শুনানির জন্য আগামি ৩১ অক্টোবর নতুন তারিখ ধার্য করেন।

মামলা সম্পর্কে জানতে চাইলে সালমান শাহ’র মামা আলমগীর কুমকুম সংবাদ মাধ্যমকে জানান, ‘দু:খিত, এ বিষয়ে আর কিছু বলতে চাই না। সালমান শাহকে হত্যার বিচার আল্লাহর উপর ছেড়ে দিলাম। আল্লাহ সবকিছু জানেন। তার কাছে আমরা বিচার পাবো।’

বাদীপক্ষের আইনজীবী ফারুক আহাম্মদ সংবাদ মাধ্যমকে বলেন,’সালমান শাহ হত্যা মামলায় পিবিআই যে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দিয়েছে আমরা এর বিরুদ্ধে নারাজি দাখিল করবো। সালমান শাহর মা মামলার বাদী নীলা চৌধুরী লন্ডনে আছেন। তিনি দেশে ফিরে আসলেই আমরা নারাজি দাখিল করবো।’

তিনি জানান, ‘পিবিআই যে প্রতিবেদন দিয়েছে আমরা তা মানি নি। আমরা মনে করছি মামলাটি সঠিকভাবে তদন্ত হয়নি। চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেওয়ার আগে পিবিআই সালমান শাহর মায়ের সাথে যোগাযাগ করেনি। সাংবাদিকদের মাধ্যমে আমরা চূড়ান্ত প্রতিবেদনের বিষয়টি জানতে পেরেছি। যাই হোক আমরা মামলাটি পুনরায় তদন্তের আবেদন করবো। র‌্যাব বা অন্য কোনো সংস্থাকে দিয়ে মামলাটি যেন পুনরায় তদন্ত করা হয়। সেটা না হলে আমরা উচ্চ আদালতে যাবো।’

 14,617 total views,  1 views today