রূপপুর বিদ্যুৎ কেন্দ্রের বর্জ্য ফেরত নেবে রাশিয়া

রিশান নাসরুল্লাহ, ঢাকা, বাংলাদেশ: রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের নিউক্লিয়ার বর্জ্য বাংলাদেশ থেকে নিয়ে যাবে রাশিয়া। বাংলাদেশের সীমানার বাইরে নিউক্লিয়ার বর্জ্য অপসারণের শর্ত রেখে রাশিয়ার সঙ্গে চুক্তি সংশোধনের খসড়া অনুমোদন করেছে সরকার।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সোমবার ঢাকায় মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে এই খসড়ার অনুমোদন দেওয়া হয়।

মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে এক ব্রিফিংয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম জানান, খসড়া অনুমোদনের সময় রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে। তিনি বলেন, নিউক্লিয়ার বিদ্যুৎ পরিচালনায় যেহেতু আমাদের কোনো অভিজ্ঞতা নেই এবং জায়গা ছোট, তাই কেন্দ্র থেকে যত গারবেজ আসবে সব রাশিয়ান কর্তৃপক্ষ এ দেশের বাইরে নিয়ে গিয়ে তা ডিসপোজ করবে।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন,  বৈঠকে সম্পূরক আলোচনা হিসেবে বিষয়টি পরিস্কার করে দেয়া হয়েছে। এখন সব বর্জ্য রাশিয়া নিজ দায়িত্বে বাংলাদেশ থেকে নিয়ে যাবে। এটা চুক্তির শর্ত।

চুক্তির খসড়া অনুমোদন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ শেষ হওয়ার পরপরই নিউক্লিয়ার পাওয়ার কোম্পানি বাংলাদেশ লিমিটেড পরিচালনার দায়িত্ব নেবে।

এরইমধ্যে কোম্পানির মাধ্যমে বিদ্যুৎকেন্দ্রটি পরিচালনা ও রক্ষণাবেক্ষণের জন্য জনবল নিয়োগ করা হচ্ছে। রাশিয়ান ফেডারেশনের সঙ্গে স্বাক্ষরিত সাধারন চুক্তি আওতায় জনবল তৈরির প্রশিক্ষণ চলছে।

চুক্তিতে সংশোধনী আনার প্রেক্ষাপট ব্যাখ্যা করে সচিব বলেন, রূপপুর দেশের প্রথম পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র। এ ধরনের বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ, পরিচালনা ও রক্ষণাবেক্ষণের বিষয়ে কোনো অভিজ্ঞতা না থাকায় শুরু থেকেই এটির অপারেশন সুষ্ঠুভাবে করার জন্য রাশিয়ার সহযোগিতা প্রয়োজন। তাই চুক্তিতে নতুন কিছু সংশোধনী আনা হয়েছে।

প্রাথমিক চুক্তিতে নিউক্লিয়ার বর্জ্য রাশিয়ার ফেরত নিয়ে যাওয়ার কথা থাকলেও চূড়ান্ত চুক্তিতে তা স্পষ্ট ছিল না। এখন সে বিষয়ে আর কোনো সংশয় নেই বলেও জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব।

ইউএস/আরএন/ঢাকা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *