রমাগঞ্জ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ গোলাম মোস্তফার খোলা চিঠি

লালমোহন থেকে তপতী সরকারঃ  ভোলা জেলার লালমোহনের রমাগঞ্জ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ গোলাম মোস্তফার খোলা চিঠি আমাদের হস্তগত হয়েছে,উক্ত চিঠি হুবুহু তুলে ধরা হল ।
“বিসমিল্লাহির রহমানির রাহিম, আসসালামু আলাইকুম প্রিয় রমাগঞ্জ ইউনিয়ন বাসী, আমি  আপনাদের এলাকার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর মাননীয় সংসদ সদস্য জনাব আলহাজ্ব নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন এমপি মহোদয়ের নির্দেশে এলাকায় বিভিন্ন জায়গায় অনেক রাস্তা পাকা করা হয়েছে, এবং বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি অনেক স্কুলের ভবন নির্মাণ করা হয়েছে, রাস্তাঘাট পোল, কালবাট, মসজিদ স্কুল মাদ্রাসার অনেক উন্নয়ন করা হয়েছে।                                                  
ইউনিয়নের প্রতিটি কাঁচা রাস্তা মাটি দিয়ে সংস্কার করেছি এবং রায়চাঁদ, কর্তারহাট, চৌমুনী, হাফিজ উদ্দিন বাজার, টল সেটসহ ড্রেনের কাজের উন্নয়ন করেছি, এবং আমাদের এমপি মহোদয়ের নির্দেশে কর্তারহাট বাজারে বহুতল বিশিষ্ট একটি ভবন নির্মাণের কাজ অব্যাহত রয়েছে,কর্তারহাট মাওলানা আব্দুল আলিম পীর সাহেবের বাড়ির দরজার বাৎসরিক ইসালে সওয়াব মাহফিলের এর বিশাল একটি মাঠ ভরাট করেছি এবং আমাদের এমপি মহোদয়ের নির্দেশে রমাগঞ্জ ইউনিয়নের প্রায় মসজিদে সোলার স্থাপন করা হয়েছে । কিছু কিছু মসজিদে টিউবওয়েল স্থাপন এবং আমি সার্বক্ষণিক রমাগঞ্জ ইউনিয়ন এর প্রতিটি মানুষ যেভাবে সুযোগ-সুবিধা পাইতে পারে তার জন্য সার্বক্ষণিক কাজ করে যাচ্ছি।                                             
করোনাভাইরাস এর মত যে মহামারী দেখা দিয়েছে সারা বিশ্বে তার জন্য সকল মানুষকে বিভিন্নভাবে রমাগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে সার্বক্ষণিক পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছি, আমাদের মাননীয় সংসদ সদস্য জননেতা  আলহাজ্ব নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন এমপি মহোদয়ের নির্দেশে রমাগঞ্জ ইউনিয়ন এর সকল বাজারে এবং সকল জায়গায় মাইকিং করে দেওয়া হয়েছে, যেন মানুষ সচেতন হয়।  আমাদের এমপি মহোদয় তার ব্যক্তিগত উদ্যোগে রমাগঞ্জ ইউনিয়ন এর জন্য ত্রাণ সামগ্রী পাঠিয়েছেন আমরা অতি শীগ্রই আপনাদের মাঝে বিতরণ করব। আপনারা সকলেই আমাদের এমপি মহোদয় এর জন্য দোয়া করবেন তিনি যেন সুস্থ থাকেন এবং আপনারা লক ডাউনের আইন মেনে চলেবেন । আপনারা সবাই ভালো থাকবেন আপনাদের জন্য শুভকামনা রইল, আল্লাহ হাফেজ।”  

 2,955 total views,  1 views today