সাভার উপজেলা লকডাউন

সাভার সংবাদদাতা মোঃ জীবন হাওলাদার:- করোনা ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে রাজধানী ঢাকার উপকন্ঠ সাভার উপজেলাকে লকডাউন করা হয়েছে। এজন্য সাভারের সঙ্গে রাজধানীসহ পাশের জেলা ও উপজেলার মধ্যে সকল সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয়েছে। সাভারের প্রবেশদ্বার আমিনবাজার, কাউন্দিয়া সীমান্ত, ভাকুর্তার মোগরাকান্দা, বটতলা, হযরতপুর ব্রীজ, কাশিমপুর সীমান্ত লকডাউন করার জন্য সকল ইউপি চেয়ারম্যান, সদস্য ও সেচ্ছাসেবকদের আদেশ ও অনুরোধ করা করেছেন সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পারভেজুর রহমান।                                       

সাভার উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, রাজধানীসহ সাভারের আশপাশের উপজেলা ও জেলায় লোকজন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হচ্ছেন। ওই সব জেলা ও উপজেলার মানুষ সাভারের উপর দিয়ে যাতায়াত করছেন। এতে তাঁদের মাধ্যমে সাভারের লোকজনও করোনাভাইরাসের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকিতে আছেন। এ কারণে সাভার হয়ে রাজধানীসহ পাশের জেলা ও উপজেলার মধ্যে সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, সোমবার সকালে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের রাজধানীসংলগ্ন সাভারের আমিনবাজারসহ অন্যান্য প্রবেশপথগুলোয় পুলিশের পাহারা বসানো হয়েছে।                                      

 

সাভারের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পারভেজুর রহমান বলেন, করোনার বিস্তার ঠেকাতেই সাভার উপজেলাকে লকডাউন করে দেওয়া হয়েছে। এখন থেকে এখানকার কোনো নাগরিক সাভারের বাইরে যেতে পারবে না এবং পাশের জেলা ও উপজেলা থেকেও কেউ সাভারে ঢুকতে পারবে না। শুধু পণ্যবাহী গাড়ি ও জরুরি সেবার অন্যান্য পরিবহন চলতে পারবে। ইউএনও পারভেজুর রহমান জুমন তার ব্যক্তিগত ফেসবুক স্ট্যাটাসে লিখেছেন “সোমবার পর্যন্ত সাভার থেকে করোনা রোগী সন্দেহে ৩১ জনের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানো হয়েছিল। আল্লাহর রহমতে ও সাভারবাসীর দোয়ার সবই নেগেটিভ প্রমানিত হয়েছে। সাভারকে করোনা মুক্ত রক্ষার্থে আমিনবাজার বর্ডার, কাউন্দিয়া সীমান্ত, ভাকুর্তার মোগরাকান্দা, বটতলা, হযরতপুর ব্রীজ, কাশিমপুর সীমান্ত লকডাউন করার জন্য সকল ইউপি চেয়ারম্যান, সদস্য ও সেচ্ছাসেবক ভাইদের আদেশ ও অনুরোধ করা হলো।

 4,289 total views,  2 views today