লালমোহনের চতলা গ্রামে রোকেয়া বেগমের রান্না করা মাংসে আল্লাহর নাম !

 রিপন শান,ব্যুরো চীফ বরিশালঃ মহান রাব্বুল আলামীনের লীলা বোঝা বড়ো কঠিন । অতি প্রাকৃতিক রহস্যময়তার মধ্যে দিয়ে তিনি মাঝেমধ্যে তাঁর সৃষ্ট মানবজাতিকে কী যেন বোঝাতে চান । প্রতি বছর বিশেষ করে ঈদুল আযহা ওরফে কোরবানির ঈদ এলেই আমাদের কানে ভেসে আসে আল্লাহ নামের অনন্য কোনো নজীরা দেখার কথা । দ্বীপজেলা ভোলায় প্রায়শই মাঙসের মধ্যে আল্লাহ স্মারক পাওয়ার ঘটনা ধর্মপ্রাণ মানুষকে চমৎকৃত করে আসছে ।

এবার এমন একটি ঘটনা ঘটেছে- ভোলার লালমোহন উপজেলার ঐতিহ্যবাহী চতলা গ্রামের বনেদি বাড়ি মনসুর আহমাদ মৌলানা বাড়িতে ।  মৌলানা বাড়ির অন্তর্গত মনির মেম্বার বাড়িতে গরীব প্রৌঢ়া রোকেয়া বেগমের ঘরে ২ আগস্ট দুপুরে রহস্যময় এই ঘটনাটি ঘটে । চতলা থেকে, আলহাজ্ব কামাল উদ্দিন মাস্টারের সন্তান, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য পরিদর্শক নেছার উদ্দিন রাসেল জানান- 

আমাদের মাঝের বাড়ির পাগলি নামে পরিচিত রোকেয়া বেগমের ঘরে ঘটনাটি ঘটে। রোকেয়া বেগম কোরবানির দিন কুড়িয়ে জমানো মাংস রান্না করার পরে এক টুকরা মাংসের মধ্যে আল্লাহু লেখাটি দেখতে পায়। এটি আমাদেরকে বিকেল বেলায় এনে দেখায়। তার ভাষ্যমতে রান্নার সময় মাঙসের  টুকরাটি বারবার ভেসে উঠছিল। দুপুরবেলা সে আমাদের বাড়িতে এসে উচ্চস্বরে আল্লাহু আল্লাহু শব্দ করে এবং মিসকিনের মাংস নিয়ে যায়।

 

 6,124 total views,  1 views today