ঝালকাঠির জেলা পরিষদ স্বচ্ছ ও জবাবদিহি মূলক প্রতিষ্ঠান

 বাধন রায়,ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ ঝালকাঠি জেলা পরিষদে ২০১৯-২০ অর্থ বছরে ঝালকাঠির কাঠালিয়া রাজাপুর উপজেলায় ১০৭টি প্রকল্প নিয়ে ৩৭টি প্যাকেজে টেন্ডার সিডিউল বিক্রি করে বিগত সময়ের চেয়ে প্রায় ১২ লক্ষ টাকা বেশি রাজস্ব আয় হয়েছে। ৩০৩৭টি সিডিউল বিক্রি করে ১৪ লক্ষ ২৯ হাজার ৪শ টাকা রাজস্ব আয় হয়েছে। বুধবার বিক্রি করা সিডিউল ঠিকাদাররা দরপত্র কোড করে ড্রপিং করেছে। ১ কোটি ৩৯ লক্ষ টাকা এডিবি সাধারণ বরাদ্ধ থেকে এই দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে।       

আগামী ২৭ আগস্ট লটারীর মাধ্যমে ঠিকাদার চুড়ান্ত করা হবে। সর্বনিম্ন ১৩৯ এবং সর্বচ্চো ১৫১টি করে ৩৭টি প্যাকেজ প্রকল্পের দরপত্র বিক্রি হয়েছে। সর্বনিম্ন ৩লক্ষ টাকা থেকে ৬লক্ষ টাকা ব্যয়ে গ্রামীন সড়কের সলিং, ঘাটলা, বাউন্ডারী ওয়াল, ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উন্নয়ন প্রকল্পভুক্ত করা হয়েছে। বর্তমান সরকারের আমলে ঝালকাঠি-২ আসনের সংসদ সদস্য জননেতা আলহাজ্ব আমির হোসেন আমুর সমর্থনে ঝালকাঠির জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সরদার মোঃ শাহআলম চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে পরিষদের সদস্যদের জেলা পরিষদকে স্বচ্ছ ও জবাবদিহি মূলক প্রতিষ্ঠানে পরিনত করেছে। 

 

 5,988 total views,  1 views today