অস্ট্রিয়ার জাতীয় সংসদে বিরোধীদলের সকল নিন্দা ও অনাস্থা প্রস্তাব খারিজ

 কবির আহমেদ, ইউরোপ ডেস্কঃ অস্ট্রিয়ার সমগ্র ফেডারেল সরকারের বিরুদ্ধে FPÖ- এর নিন্দা প্রস্তাব এবং অর্থমন্ত্রী ব্লুমেলের বিরুদ্ধে SPÖ- এর অনাস্থা প্রস্তাব জাতীয় পরিষদে(সংসদে) সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পাওয়ায় বাতিল বা খারিজ হয়ে গেছে ।

অস্ট্রিয়ান সংবাদ সংস্থা এপিএ জানিয়েছেন আজ অস্ট্রিয়ার জাতীয় সংসদের বিশেষ অধিবেশনে অস্ট্রিয়ার প্রধান বিরোধীদল SPÖ অর্থমন্ত্রী গেরনট ব্লুমেলের(ÖVP) বিরুদ্ধে একটি অনাস্থা প্রস্তাব আনলে তা ভোটে দেয়া হয়। অনাস্থা প্রস্তাবটিতে প্রয়োজনীয় ভোট (৯২) না পাওয়ায়,সংসদ তা বাতিল বা খারিজ করে দেয়।

এর আগে অস্ট্রিয়ার আরেক বিরোধীদল FPÖ অস্ট্রিয়ার বর্তমান সমগ্র কোয়ালিশন সরকারের বিরুদ্ধে একটি নিন্দা প্রস্তাব আনেন কিন্ত এর পক্ষেও পর্যাপ্ত ভোট না পরায় তা বাতিল হয়ে যায়।

এদিকে নব নিযুক্ত অস্ট্রিয়ার নতুন সরকার প্রধান (চ্যান্সেলর) আলেকজান্ডার শ্যালেনবার্গ (ÖVP) আজ মঙ্গলবার অস্ট্রিয়ার জাতীয় কাউন্সিলের (সংসদ) বিশেষ অধিবেশনে তার প্রথম ভাষণে স্পষ্ট করে দিয়েছেন যে তিনি তার পূর্বসূরী সরকার প্রধান সেবাস্তিয়ান কুর্জের (ÖVP) এর সরকার অব্যাহত রাখবেন।

তিনি তার সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বলেন,আপাতত সরকারি কর্মসূচি পূর্বের মতই চলবে মাইগ্রেশন হোক, শ্রমবাজার হোক বা করোনা নীতি হোক। তিনি কোয়ালিশন সরকারের শরিক দল গ্রিণ পার্টিকে তার সরকারকে পূর্ণ সমর্থন দেয়ায় গ্রিণ পার্টি ও সরকারের উপ প্রধান ভাইস চ্যান্সেলর ভার্নার কোগলারের (গ্রিনস) প্রতিও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

অস্ট্রিয়ার সরকার প্রধান হিসাবে তার নিয়োগের ব্যাপারে তিনি বলেন,তিনি নিজেও এই অপ্রত্যাশিত নিয়োগের ঘটনায় বিস্মিত হয়েছিলেন। তিনি আরও বলেন, সরকারে সৃষ্ট বিশৃঙ্খলায় এবং  রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা ফিরিয়ে আনতে তিনি সরকার প্রধানের দায়িত্ব গ্রহণ করেছেন। তিনি আরও জানান দেশের সরকারে গত কয়েকদিনের উদ্ভূত পরিস্থিতি কাটিয়ে উঠতে এবং সরকারের সফল কাজ অব্যাহত রাখার জন্য জোটের অংশীদারদের দিকে তার হাত ও সহযোগিতা অব্যাহত প্রসারিত থাকবে।

অস্ট্রিয়ার নতুন সরকার প্রধান  আলেকজান্ডার শ্যালেনবার্গ তার বক্তব্যের পর তিনি তার সহকর্মী ও বিরোধীদের সঙ্গে করমর্দন করেন। সরকারি ও বিরোধীদলের সকলেই তাকে সরকার প্রধান নিযুক্ত হওয়ায় অভিনন্দন জানান। শ্যালেনবার্গও বিরোধী দলের কাছে হাস্যজ্জোলভাবে হাত বাড়িয়ে দিয়েছিলেন। তবে যখন তিনি অর্থমন্ত্রী গেরনট ব্লুমেলের (ÖVP) বিরুদ্ধে আজকের (SPÖ) অনাস্থা প্রস্তাবের মতো “অশুভ কর্ম” নিয়ে কটাক্ষ করেছিলেন তখনই সংসদে তীব্র অসন্তুষ্টি সৃষ্টি হয়েছিল।

আজ অস্ট্রিয়ায় করোনায় নতুন করে সংক্রমিত শনাক্ত হয়েছেন ১,৩৯০ জন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন ১৪ জন।রাজধানী ভিয়েনায় আজ নতুন করে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত হয়েছেন ২০৭ জন।

অন্যান্য রাজ্যের মধ্যে OÖ রাজ্যে ৩৯৭ জন,NÖ রাজ্যে ২৬৫ জন,Steiermark রাজ্যে ১৩৩ জন্য,Salzburg রাজ্যে ১৩১ জন,Tirol রাজ্যে ১০৯ জন,Kärnten রাজ্যে ৭৩ জন,Burgenland রাজ্যে ৪৯ জন এবং Vorarlberg রাজ্যে ২৬ জন নতুন করে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত হয়েছেন।

অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী আজ সমগ্র দেশে করোনার প্রতিষেধক টিকা দেয়া হয়েছে মাত্র ৭,৫৮১ ডোজ। এই পর্যন্ত মোট টিকাদানের পরিমাণ ১,০৯,৫৭,৬১৯ ডোজ। অস্ট্রিয়ায় এই পর্যন্ত করোনার প্রতিষেধক টিকার সম্পূর্ণ ডোজ গ্রহণ করেছেন মোট ৫৪ লাখ ৮৩ হাজার ৬৪৮ জন,যা দেশের মোট জনসংখ্যার শতকরা ৬১,৪ শতাংশ।

অস্ট্রিয়ায় এই পর্যন্ত করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৭,৬৩,৭২৮ জন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন ১১,১২০ জন।করোনার থেকে এই পর্যন্ত আরোগ্য লাভ করেছেন মোট ৭,৩৩,৪৩৭ জন। বর্তমানে করোনার সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ১৯,৩৭১ জন। এর মধ্যে ক্রিটিক্যাল অবস্থার মধ্যে আইসিইউতে আছেন ২১৮ জন এবং বাকীরা নিজ নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন।

 14,539 total views,  1 views today