অস্ট্রিয়ার বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো চায় করোনার সময় নিষেধাজ্ঞা ভংগের সকল জরিমানা বাতিলের

 অন লাইন ডেস্ক থেকে,কবির আহমেদঃ অস্ট্রিয়ার সমস্ত বিরোধী দল চায় করোনার সময় পুলিশ কর্তৃক মামলা ও জরিমানার সকল অর্থ সাধারণ ক্ষমা ঘোষণার মাধ্যমে মাফ করে দিতে বা প্রত্যাহার করে নিতে। অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় প্রাথমিকভাবে বিরোধী দলের মামলা ও জরিমানা মাফ করার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছেন। স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয় বলেন, মামলাগুলি আদালতে বিচারাধীন অবস্থায় রহিয়াছে।                

সংসদের তিন বিরোধী দলই করোনার জরিমানা মওকুফের ব্যপারে একমত হয়েছেন। এর মধ্যে SPÖ এবং NEOS বৃহস্পতিবার অস্ট্রিয়ার পার্লামেন্টে করোনার সময় সরকার কর্তৃক সকল জরিমানা মওকুফ চেয়ে আবেদন পত্র জমা দিয়েছেন। অস্ট্রিয়ান সংবাদ সংস্থাকে স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়ের জনৈক ঊধর্তন কর্মকর্তা বিরোধী দলের দাবি মানা সম্ভব নয় বললেও অস্ট্রিয়ার বিচার বিষয়ক মন্ত্রী আলমা জাদিক (গ্রীণ পার্টি) কিছুটা আশ্বাস দিয়ে বলেন, বিরোধী দলের সাধারণ ক্ষমার বিষয়টি পার্লামেন্টে আলোচনা করা হবে,এবং সাধারণ ক্ষমা ঘোষণার জন্য আলোচনা সাপেক্ষে সংবিধান বিষয়ক মন্ত্রী ক্যারোলিন এডস্ট্যাডলারের পার্লামেন্টে সংবিধান সংশোধনী বিল আনতে হবে।

পুলিশের পক্ষ থেকে ২১,০০০ মামলা ও ১০ হাজার লোককে প্রশাসনিক জরিমানা করার কথা বললেও আসলে সঠিক কত লোককে  জরিমানা করা হয়েছে তা সঠিক ও নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না। তবে ভিয়েনা ও অস্ট্রিয়ার Steirmark প্রদেশেই সবচেয়ে বেশী জরিমানা করা হয়েছে। জরিমানার পরিমাণ প্রায় দেড় মিলিয়ন ইউরো বলে নির্ভর যোগ্য সূত্রে জানা গেছে।                               

এইদিকে আজ অস্ট্রিয়ায় নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ২০ জন এবং মৃত্যু বরণ করেছেন ১ জন। এই পর্যন্ত করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১৭,২২৩ জন এবং সর্বমোট মৃত্যু বরণ করেছেন ৬৮৮ জন। করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ১৬,১০১ জন। বর্তমানে আইসিইউ তে আছেন মাত্র ৮ জন এবং হাসপাতালে চিকিত্সাধীন অবস্থায় আছেন ৭৬ জন।

 5,820 total views,  1 views today