অষ্ট্রিয়ায় করোনায় পুনঃরায় বিধিনিষেধ কিছুটা কঠোর করা হবে-প্রধানমন্ত্রী

 অন লাইন ডেস্ক থেকে,কবির আহমেদঃ চ্যান্সেলর সেবাস্তিয়ান কুর্জ সোমবার রাতে অস্ট্রিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন ORF সেন্টারে গ্রীষ্মকালীন টকশোর শেষ বৈঠকে উপরোক্ত মন্তব্য করেন। সরকার প্রধান জানান আগামীকাল বুধবার মন্ত্রিপরিষদের এক করোনা সম্পর্কিত এক জরুরী বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। বর্তমানে ক্রমবর্ধমান করোনার বৃদ্ধিতে আমরা কিছুটা উদ্বিগ্ন বলে তিনি জানান। তবে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন যে,প্রত্যাশার চেয়ে শীঘ্রই এই সঙ্কট শেষ হবে।

ফেডারেল চ্যান্সেলর সেবাস্তিয়ান কুর্জ আরও জানান বুধবার মন্ত্রিপরিষদের বিশেষ বৈঠকে করোনার বর্তমান পরিস্থিতি মূল্যায়ন করা হবে এবং মন্ত্রিপরিষদ কর্তৃক পরিস্থিতি পর্যালোচনা পর কিছু সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করা হবে। তিনি ব্যক্তিগতভাবে পুনরায় মাস্ক পড়ার কঠোরতার প্রতি ইঙ্গিতে বলেন,অতীতে সকলেই সর্বত্র মাস্ক পড়ার কারনে অস্ট্রিয়ায় করোনার সংক্রমণের বিস্তার অনেকটাই হ্রাস পেয়েছিল।

এদিকে আজ ভিয়েনায় এক প্রেস ব্রিফিংয়ে অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী রুডলফ আনস্কোবার জনগণকে সতর্ক করে বলেন,আমরা বর্তমানে করোনার দ্বিতীয় প্রাদুর্ভাবের মধ্যে প্রবেশ করেছি। আমাদের এখানে এখন প্রতিদিন করোনার সংক্রমণ অব্যাহত ভাবে বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই আমাদেরকে আরও সচেতন ও যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

তিনি বলেন,আমরা আশা করছি অস্ট্রিয়ায় করোনার টিকা বা ভ্যাকসিন আগামী জানুয়ারী মাসের দিকে পাওয়া যাবে। প্রথমে ৬ লক্ষ ডোজ ভ্যাকসিন স্বাস্থ্য সম্পর্কিত কর্মীদের যেমন ডাক্তার,নার্স এবং হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে এবং পরবর্তী ৩ লক্ষাধিক ডোজ সাধারণ মানুষের জন্য দেওয়া হবে। অস্ট্রিয়ায় করোনার টিকা বা ভ্যাকসিন বাধ্যতামূলক হবে না। যদি কেহ টিকা দিতে না চায় তাহলে তাকে জোর করা হবে না।

আজ অস্ট্রিয়ায় নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ২০৪ জন মানুষ এবং ১ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। রাজধানী ভিয়েনাতে আজ সংক্রমিত হয়েছেন ৮২ জন এবং এখানে বর্তমান সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ১,৭২৩ জন। আজ অনেক মানুষ সুস্থ হওয়ায় সক্রিয় রোগীর সংখ্যা গতকালের চেয়ে কিছুটা কম।

এই পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২৭,৬৪২ জন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন ৭৩৪ জন। করোনার থেকে আরোগ্য লাভ করেছেন ২৩,৫৬৫ জন মানুষ। বর্তমানে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ৩,৩৪৩ জন। এর মধ্যে ক্রিটিক্যাল অবস্থায় আইসিইউতে আছেন ৩০ জন এবং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন ১৪৯ জন। বাকীরা নিজ নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন।

 7,349 total views,  1 views today