ভিয়েনা থেকে সুইজারল্যান্ড আগতদের জন্য ১৪ দিনের কোয়ারান্টাইন ঘোষণা

 আন্তর্জাতিক ডেস্ক থেকে,কবির আহমেদঃ করোনার সংক্রমণের ক্রমবর্ধমান বৃদ্ধির ফলে সুইজারল্যান্ড ভিয়েনাকে ঝুঁকিপূর্ণ অঞ্চলের তালিকায় ফেলেছে। আগামী সোমবার ১৪ সেপ্টেম্বর থেকে ভিয়েনা থেকে আসা যাত্রীদের উপর ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনের প্রয়োজনীয়তা প্রযোজ্য হবে, শুক্রবার সুইজারল্যান্ডের সংবাদ সংস্থা Keystone- SDA সুইস ফেডারেল কাউন্সিল সূত্রে এই তথ্য জানিয়েছেন।

অস্ট্রিয়ান রাজধানী ছাড়াও ব্রিটিশ ভার্জিন দ্বীপপুঞ্জ, চেক প্রজাতন্ত্র এবং ফ্রান্সের কয়েকটি নির্দিষ্ট অঞ্চলও এই তালিকায় যুক্ত করা হয়েছে। বর্তমান সুইস ঝুঁকিপূর্ণ তালিকায় ৫০ টিরও বেশি দেশ ও অঞ্চল রয়েছে।

সুইজারল্যান্ড তার প্রতিবেশী দেশ সমূহের যে শহর বা অঞ্চল করোনা জন্য উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ সে এলাকার লোকজনের জন্য কোয়ারেন্টাইন ঘোষণা করেছিলেন। সুইস কর্তৃপক্ষ যদি কোন শহর বা অঞ্চলে প্রতি ১,০০,০০০ লাখের মধ্যে ৬০ জন করোনায় আক্রান্ত হয় তখন সে শহর বা অঞ্চলকে উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ মনে করে। বর্তমানে ভিয়েনায় প্রতি ১,০০,০০০ লাখে ৮০ জনের উপরে করোনায় আক্রান্ত।

তবে সুইস ফেডারেল কাউন্সিল কর্তৃপক্ষ প্রতিবেশী সীমান্ত অঞ্চলগুলি থেকে ভ্রমণকারীদের যেমন Vorarlberg এবং Tirol থেকে আগতদের জন্য কোয়ারেন্টাইনের বাধ্যবাধকতা থেকে অব্যাহতি দিয়েছেন। এখানে উল্লেখ্য যে সুইজারল্যান্ডের সীমান্তবর্তী অস্ট্রিয়ার অনেক নাগরিক সুইজারল্যান্ড কাজ করে থাকেন। তারা প্রতিদিন অস্ট্রিয়া থেকে সুইজারল্যান্ড যেয়ে কাজ করে থাকেন।

সুইজারল্যান্ডেও, জুনের মাঝামাঝি থেকে ক্রমাগত করোনার সংক্রমণের সংখ্যা বাড়ছে। সামগ্রিকভাবে অস্ট্রিয়ার প্রতিবেশী দেশটি, যেখানে প্রায় একই সংখ্যক জনসংখ্যা রয়েছে, এখনও পর্যন্ত অস্ট্রিয়ার চেয়ে করোনার সংক্রমণ এবং মৃত্যুতে এগিয়ে রয়েছে। সুইজারল্যান্ড করোনার মোট আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ৪০,০০০ হাজার এবং মৃত্যুবরণ করেছেন প্রায় ২,০০০ জন।

 

 7,621 total views,  1 views today