ভিয়েনায় নাটকীয় পরিস্থিতি ! সুইজারল্যান্ড ও জার্মানির লাল তালিকাভুক্ত ভিয়েনা !

আমরা করোনার দ্বিতীয় প্রাদুর্ভাবে প্রবেশ করে ফেলেছি,প্রতিদিন নতুন আক্রান্ত আশঙ্কাজনক – সেবাস্তিয়ান কুর্জ

 অন লাইন ডেস্ক থেকে,কবির আহমেদঃ অস্ট্রিয়ার সরকার প্রধান চ্যান্সেলর সেবাস্তিয়ান কুর্জ আজ এক টুইট বার্তায় বলেন, আমরা করোনার মহামারীর দ্বিতীয় তরঙ্গের ভিতরে প্রবেশ করে ফেলেছি। গত কয়েকদিনে এখানে গড়ে প্রতিদিন সংক্রমণ প্রায় ১,০০০ হাজার পৌছে গেছে। এই সংক্রমণের অর্ধেকেরও বেশী রাজধানী ভিয়েনায়।

ফেডারাল চ্যান্সেলর সেবাস্তিয়ান কুর্জ অস্ট্রিয়ায় করোনার মহামারী আরও যাতে ছড়িয়ে না পড়ে তার জন্য আরও কঠোর নিষেধাজ্ঞার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। তিনি জনসাধারণকে আরও অধিকতর সতর্ক ও সচেতনতা হওয়ার আহ্বান জানান।

তিনি বলেন,আজ দেশের করোনার বর্তমান সংক্রমণ পর্যালোচনার জন্য মন্ত্রী পরিষদের এক জরুরী বৈঠক ডাকা হয়েছে। আগামীকাল করোনা কমিশনেরও এক অনির্ধারিত জরুরী বৈঠক ডাকা হয়েছে।

তিনি আরও উল্লেখ করে বলেন, “দুই সপ্তাহ আগে প্রতিদিন প্রায় ৩৫০ টি সংক্রমণ ছিল, এরপর আমরা ইতিমধ্যে ৮৫০ এবং ৮৬৯ এর মধ্যে পৌঁছে গেছি।ভিয়েনায় এই সংক্রমণের উর্ধগতি বিশেষত নাটকীয়, যেখানে অস্ট্রিয়ায় সমস্ত নতুন সংক্রমণের প্রায় ৫০ শতাংশ এখানে রেকর্ড করা হয়েছে। এবং শীঘ্রই আমরা প্রতিদিন এক হাজার নতুন সংক্রমণের লক্ষ্যে পৌঁছে যেতে পারি বলে চ্যান্সেলর আশঙ্কা ব্যক্ত করেছেন।

সেবাস্তিয়ান কুর্জ এক জরুরী আবেদনে বলেন, “আমি জনগণকে সমস্ত পদক্ষেপ মেনে চলতে, সামাজিক যোগাযোগগুলি কমাতে, মুখ এবং নাকের সুরক্ষা পরিধান করতে এবং যতদূর সম্ভব যেকোন জায়গায় তাদের দূরত্ব বজায় রাখতে অনুরোধ করছি।

সরকারপ্রধান আগস্টের শেষে বলেছিলেন টানেলের শেষে আলো দেখা যেতে পারে – এবং আগামী বৎসর গ্রীষ্মে আমরা স্বাভাবিক হতে পারবো। তবে করোনার সংক্রমণ বিস্তার প্রতিরোধে আমাদের সবার পূর্বের মতোই এই শরৎ এবং শীতকালে এক সাথে সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে।

 7,453 total views,  2 views today