জার্মানিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে আরও একজন প্রবাসীর মৃত্যুবরণ!

জার্মানির চ্যান্সেলর Angela Merkel এর জনগণের প্রতি করোনার বিস্তার রোধে ঘর থেকে বের না হওয়ার ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার অনুরোধ করেছেন

 আন্তর্জাতিক ডেস্ক থেকে,কবির আহমেদঃ জার্মানিতে করোনা ভাইরাসের কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় একজন প্রবাসী বাংলাদেশী কামরুল ইসলাম মুকুল শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন। “ইন্নালিল্লাহে ওয়াইন্না ইলাইহি রাজিউন।” ইতিপূর্বে গত ২৩ সেপ্টেম্বর শাহিন সিকদার নামে আরও একজন প্রবাসী ফ্রাঙ্কফুর্টের পার্শ্ববর্তী হানাউ শহরে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছিলেন।

জনাব কামরুল ইসলাম মুকুল ফ্রাঙ্কফুর্টের পার্শ্ববর্তী শহর ওফেনবাখের অধিবাসী। তিনি করোনায় আক্রান্ত অবস্থায় আজ রবিবার ১৮ অক্টোবর জার্মানির স্থানীয় সময় আনুমানিক ৫ টায় ইন্তেকাল করেছেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল আনুমানিক ৬০ বছর। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক মেয়ে এবং অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। মরহুম কামরুল ইসলাম মুকুলের বাড়ি বাংলাদেশের কুমিল্লা জেলায়। তিনি দীর্ঘ দিন যাবৎ জার্মানিতে স্বপরিবারে বসবাস করে আসছেন।

এদিকে কমিউনিটিতে বেশ পরিচিত কামরুল ইসলাম মুকুল এর মৃত্যুতে বাংলাদেশি কমিউনিটিতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। কামরুল ইসলাম মুকুল এর পারিবারিক বন্ধু ফ্রাঙ্কফুর্টে বসবাসকারী কমিউনিটি লিডার আবু বকর সিদ্দিক জানিয়েছেন, কামরুল ইসলাম মুকুল করোনা আক্রান্ত অবস্থায় মারা গিয়েছেন। তিনি জানান, মরহুম মুকুল আতান্ত স্বজ্জন, পরিচ্ছন্ন এবং একজন দ্বীনদার মানুষ ছিলেন। এ সময় তিনি কামরুল ইসলাম মুকুল এর রুহের মাগফিরাতের জন্য সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন।

এদিকে জার্মানিতে পুনরায় করোনার সংক্রমণ উদ্বেগজনক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রথম প্রাদুর্ভাবের সময় এপ্রিল মাসের পর থেকে জার্মানি করোনাভাইরাস এর সংক্রমণের বিস্তার নিয়ন্ত্রণের মধ্যে রাখতে সক্ষম হলেও এখন আবার দ্বিতীয়বারের প্রাদুর্ভাবে আশঙ্কাজনক ঊর্ধ্বমুখী হওয়ায় উদ্বেগ উৎকণ্ঠায় আছেন জার্মানিতে বসবাসরত বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত লোকজন। বর্তমানে জার্মানিতে অনেক বাংলাদেশী প্রবাসী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

এদিকে জার্মানির চ্যান্সেলর Angela Merkel জাতির উদ্দেশ্যে এক ভিডিও বার্তায় জার্মানির জনগণকে করোনার সংক্রমণ থেকে বেঁচে থাকতে আরও সচেতন হওয়ার অনুরোধ করেছেন। তিনি বলেন এখন দূরত্ব এবং মুখোশ পর্যাপ্ত নয়,পারস্পরিক সামাজিক যোগাযোগ আরও হ্রাস করতে হবে। চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মের্কেল নাগরিকদের সতর্ক করেছেন যে, সংক্রমণের ক্রমবর্ধমান বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে করোনা মহামারীটির মারাত্মক পর্যায়ে রয়েছে। যদি সম্ভব হয় আপাতত আগামী কয়েক সপ্তাহ অতি জরুরী প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের না হওয়ার এবং মানুষের সাথে যোগাযোগ হ্রাস করতে অনুরোধ করেছেন।

জার্মানিতে আজ নতুন করে করোনায় সংক্রমিত সনাক্ত হয়েছেন ২,৫৭০ জন। এই পর্যন্ত প্রায় ৩ লাখ ৬৫ হাজার মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন ৯ হাজার ৮৬০ জন মানুষ।

 10,076 total views,  1 views today